ডোমেইন (Domain) কি? ডোমেইন কাকে বলে? কিভাবে কিনব ?

ডোমেইন (Domain) কি?

ডোমেইন (Domain) কি?  ডোমেইন কাকে বলে?

ডোমেইন হচ্ছে বিভিন্ন ওয়েবসাইটের নাম। যেমন “google.com” গুগলের ওয়েবসাইটের নাম, “facebook.com” ফেসবুকের ওয়েবসাইটের নাম। ডোমেইন মূলত একটি এড্রেস যার মাধ্যমে আমরা কোনো নির্দিষ্ট ওয়েবসাইট ভিজিট করতে পারি। ধরুন আপনি কারো বাসা খুঁজছেন কিন্তু তার ঠিকানা জানেন না, তাহলে কি আপনি তার বাসা খুঁজে পাবেন? অবশ্যই পাবেন না। ঠিক তেমনি ডোমেইন নেম ছাড়া আপনি কোনো ওয়েবসাইটে যেতে পারবেন না।

ডোমেইন কি , Domain ki

সুতরাং এক কথায় কোনো ওয়েবসাইটের মূল নামটিই হচ্ছে তার ডোমেইন নেম।

যেকোনো ডোমেইন/ হোস্টিং খুব সহজে বিকাশের মাধ্যমে কিনতে ভিজিট করুন Exonhost

এখানে আপনি পাবেন,

  • মাত্র ১২0 টাকায় (.xyz) ডোমেইন (বাৎসরিক)
  • মাত্র ৭৫০ টাকায় (.com) ডোমেইন (বাৎসরিক)
  • মাত্র ২৪৫ টাকায় ৫ জিবি SSD হোস্টিং (মাসিক)



    আরও পড়ুন


    Domain কত প্রকার?

    Domain সাধারণত তিন ধরনের হয়ে থাকে।

    1.  Top-Level Domain
    2.  country code Top Level Domain
    3.  Sub Level Domain

    Top-Level Domain / টপ লেভেল ডোমেইন কি? 

    টপ লেভেল ডোমেইন হচ্ছে .com, .org, .net, .info, .pw, .me ইত্যাদি।

    Country Code Top Level Domain / কান্ট্রি টপ লেভেল ডোমেইন কি?

    বিভিন্ন দেশের কিছু নিজস্ব ডোমেইন থাকে যেমন যেমন .bd(Bangladesh), .in (India), .pk (Pakistan), .uk (United Kingdom), .us (America), ইত্যাদি।

    Sub Level Domain / সাব লেভেল ডোমেইন কি?

    এগুলো মূলত ফ্রি ডোমেইন হয়ে থাকে। বিভিন্ন ব্লগিং সাইট ফ্রিতে আপনাকে তাদের নাম সহ কিছু ডোমেইন নেম ব্যবহার করতে দেয়, অথবা আপনি যদি একটি ডোমেইন কিনেন তবে আপনার ডোমেইন এর নামে আপনি কিছু সাব ডোমেইন ফ্রিতে ব্যবহার করতে পারবেব। এদের সাব লেভেল ডোমেইন বলে। 
    যেমন blog.blogspot.com এখানে blog.com হচ্ছে Sub Level Domain । একটি ডোমেইন এ একাধিক Sub Level Domain থাকতে পারে। যেমন example.blog.blogspot.com ইত্যাদি ।

    ডোমেইন রেজিস্ট্রেশন কি?

    আপনি যদি অনলাইনে আপনার প্রতিষ্ঠান বা সার্ভিসের জন্য একটি ওয়েবসাইট বানাতে চান তাহলে আপনাকে অবশ্যই একটি ডোমেইন রেজিস্ট্রেশন করতে হবে। আপনি যে ডোমেন নেম টি রেজিস্ট্রেশন করাতে চান সেটি যদি অন্যকেউ আপনার আগেই রেজিস্টার করে ফেলে তাহলে আপনাকে অন্য কোনো নামে ডোমেন রেজিস্টার করতে হবে। ডোমেন রেজিস্টার করাতে আপনাকে কোনো দৌড় ঝাপ করতে হবে না, আপনি ঘরে বসেই অনলাইনে আপনার ডোমেন টি রেজিস্টার করতে পারবেন অল্প সময়ের মধ্যে এবং ডোমেন রেজিস্টার করা খুবই সহজ।

    ডোমেইন কিভাবে কিনব?

    ডোমেইন কেনার সবচেয়ে জনপ্রিয় কিছু সাইট হচ্ছে namecheap.com, godaddy.com, এখান থেকে আপনি খুব কম খরচে ডোমেইন কিনতে পারবেন। তবে এখান থেকে ডোমেইন কিনতে হলে আপনাকে mastercard থাকতে হবে। আপনার যদি মাস্টারকার্ড থেকে থাকে তাহলে আপনি এদের থেকেই ডোমেইন কেনাটা বেস্ট হবে।

    তবে আপনি চাইলে এখন বিকাশের মাধ্যমেও ডোমেইন কিনতে পারবেন। সেজন্য আপনাকে যেতে হবে Exonhost এ। 

    এখান থেকে খুব সহজেই আপনি বিকাশে/রকেটের মাধ্যমে ডোমেইন কিনতে পারবেন। এরা খুবই বিশ্বস্ত এবং অনেক বছর ধরে এ ব্যবসায় আছে। অন্যান্য ওয়েবসাইট থেকে তারা ডোমেইন এর দাম তুলনামূলক কম রাখে। আমি নিজেও তাদের থেকে ৪ টি ডোমেইন কিনেছি, তাদের ২৪ ঘন্টা লাইভ চ্যাট সাপোর্ট টা আমার খুবই ভালো লাগে। যেকোনো সমস্যায় পরলে আপনি চ্যাটের মাধ্যমে খুব সহজেই সমাধান পেয়ে যাবেন তাদের কাছ থেকে এবং এরা খুব দ্রুত মেসেজ এর রিপ্লাই করে।

    বিকাশের মাধ্যমে ডোমেইন কেনার আরো অনেক সাইট আছে তবে আমি অনেক যাচাই করে দেখেছি যে Exonhost ই সবচেয়ে ভালো সার্ভিস দিচ্ছে এই মূহুর্তে। আর তাদের সার্ভিস অত্যন্ত ভালো, আমি নিজেও ব্যবহার করে দেখেছি এবং আপনাদের গ্যারান্টি দিতে পারি। তাই আমি এখান থেকেই ডোমেইন কেনার সাজেস্ট করব। এই লিংক এ ক্লিক করে ঘুরে আসুন তাদের ওয়েবসাইট থেকে 

    ডোমেইন কেনার জন্য Exonhost এ গিয়ে আপনি যে ডোমেইন টি কিনতে চান সেটি সার্চ করুন এবং দেখুন সেই ডোমেইন টি available আছে কিনা। আপনার পছন্দের ডোমেইন টি যদি আপনার আগে অন্যকেউ কিনে থাকে তাহলে আপনি আর সেটা কিনতে পারবেন না। আপনাকে অন্য কোনো নাম খুঁজে বের করতে হবে। তাই এক্ষুনি দেখে আসুন আপনার ডোমেইন টি খালি আছে কিনা।

    ডোমেইন কিনতে কত টাকা লাগে?

    ডোমেইন কিনতে কত টাকা লাগবে সেটা নির্ভর করে আপনার ডোমেইন এর ধরনের ওপর। যেমন .com, .net, .org ডোমেইন কিনতে সাধারণত ৯০০-১০০০ টাকা লাগে। 
    আবার .bd, .us, .in ডোমেইন কিনতে হাজারের উপর খরচ লাগে। আবার .xyz ডোমেইন গুলো ৪০০-৫০০ টাকার মধ্যেও পাওয়া যায়। 
    এটি একটি বাৎসরিক ফি, মানে প্রতিবছর একবার আপনাকে এই টাকাটা পে করতে হবে।

    কিভাবে ডোমেইন রেজিস্ট্রেশন চেক করব?

    ডোমেইন কেনার কয়েক ঘন্টা পর আপনি চেক করে দেখুন যে যাদের কাছ থেকে ডোমেইন টি কিনেছেন তারা ডোমেইন টি আপনার নাম রেজিস্টার করেছে কিনা। সেটা চেক করতে whois.con ভিজিট করুন। এখানে ডোমেইন কেনার সময় আপনি যা যা ইনফরমেশন দিয়েছেন সব দেখাবে।
    আপনি চাইলে অন্য কারো ডোমেইন ও চেক করে দেখতে পারেন যে সেটি কার নামে রেজিস্টার করা আছে।

    সতর্কতা

    আপনি যদি অন্য কোনো ওয়েবসাইট থেকে Domain কিনতে চান তাহলে সবার আগে দেখবেন যে তারা আপনাকে ডোমেইনের ফুল কন্ট্রোল দেয় কি না। ফুল কন্ট্রোল প্যানেল ছাড়া আপনি ডোমেইন কিনবেন না। এছাড়া অনেক অসাধু ব্যবসায়ী আছে যারা আপনার ডোমেইন টি তাদের নিজের নামে রেজিস্টার করে আপনার থেকে টাকা খাবে। তাই বিশ্বস্ত জায়গা থেকেই ডোমেইন কিনুন। এক্ষেত্রে আমি বলব আপনারা Exonhost থেকে কিনুন কারন তারা খুবই বিশ্বস্ত এবং সেরা সার্ভিস দিচ্ছে।

    তাছাড়া আপনার ডোমেইনটি যেন .com হয়, কারন সাধারণত মানুষ ডোমেইন বলতে মূলত .com ডোমেইনকে বুঝে থাকে। এছাড়া আপনি চাইলে .Com/.Net/.Org ডোমেইন গুলোও কিনতে পারেন। 

    ডোমেইন ও হোস্টিং এর মধ্যে পার্থক্য কি?

    ডোমেইন হচ্ছে আপনার ওয়েবসাইট এর এড্রেস বা ওয়েবসাইট এর নাম। এর মাধ্যমে ভিজিটর রা আপনার ওয়েবসাইট খুঁজে পাবে এবং ভিজিট করবে। 

    কিন্তু হোস্টিং হচ্ছে এক ধরনের মেমোরি লোকেশন, যেখানে আপনার ওয়েবসাইটের যাবতীয় ফাইল যেমন ছবি, ভিডিও ইত্যাদি স্টোর করা থাকবে এবং আপনার ভিজিটরের কাছে দেখাবে।

    সুতরাং একটি ওয়েবসাইট বানানোর জন্য আপনাকে ডোমেইন ও হোস্টিং দুটোই কিনতে হবে, তা নাহলে আপনি ওয়েবসাইট বানাতে পারবেন না।

    ডোমেইন নিয়ে কিছু তথ্য ও ফ্যাক্টস

    • ১৯৮৩ সালে পল মকাপেট্রিস প্রথম ডোমেইন নেম সিস্টেম উদ্ভাবন করেন
    • বিশ্বের প্রথম ডোমেইন হচ্ছে symbolics.com
    • এটি Massachusetts computer company দ্বারা রেজিস্টার করা হয়েছিল মার্চ ১৫, ১৯৮৫ সালে

    FAQ

    ডোমেইন কি?

    কোনো ওয়েবসাইটের মূল নামটিই হচ্ছে তার ডোমেইন নেম।

    সাব ডোমেইন কি

    বিভিন্ন ব্লগিং সাইট ফ্রিতে তাদের নাম সহ কিছু ডোমেইন নেম ব্যবহার করতে দেয়, এদের সাব ডোমেইন বলে।যেমন blog.blogspot.com এখানে blogspot.com হচ্ছে Sub Level Domain

    কিভাবে ডোমেইন হোস্টিং কিনব?

    বিভিন্ন ডোমেইন ও হোস্টিং প্রভাইডারের ওয়েবসাইট থেকে ডোমেইন হোস্টিং কিনতে হয়।

    ডোমেইন হোস্টিং কিনতে কত টাকা লাগে?

    বিভিন্ন প্রভাইডার বিভিন্ন দামে ডোমেইন ও হোস্টিং সেল করে থাকেন তাদের প্রডাক্ট কোয়ালিটির ওপর ভিত্তি করে।